চারুমান্নান

অনুগল্প-মরিয়মের স্বপ্ন

Decrease Font Size Increase Font Size Text Size Print This Page

অনুগল্প-মরিয়মের স্বপ্ন

===প্রতি দিন স্বপ্ন বুনে চাঁদ। আর স্বপ্নের বিস্তার ঘটায় রাত্রি। প্রতি দিন কাটে সেই স্বপ্নের ভাবনায়।
যমুনা পারের মরিয়ম, সেখানে শিশু থেকে কৈশর তার পর যৌবন কেটে ছিল, সবুজ ঘাস আর চরের বালুতে।
যমুনার ঘোলা পানিতে কত সাঁতার কেটেছে। মরিয়ম বেড়ার ঘরে কুপির আলোতে শুয়ে শুযে ভাবনার জ্বালে হারিয়ে যেত,
পাড়ার মোসলেম নামের যুবক নিয়ে। প্রায় দেখা হত মোসলেমের সাথে।
চোখে চোখে কথা হয়, মুচকি হাসিতে পরান ভরে দু’জনার। বর্ষা পেরিয়ে শরত হেমন্ত শীত পেরিয়ে বসন্ত শেষে।
সেবার দেখা হয়ে ছিল, সরিষা খেতে। দুজন পাশাপাশি বসে কত কথা।
সেদিন মোসলেম মরিয়মকে দুই বাহুর মধ্যেখানে আটুসাঁটু করে ঠোঁটে চুমা দিয়ে ছিল।
সে কথা আজও মনে হলে মরিয়ম এর দু’গাল লাল হয়ে ওঠে। চঙ্চল হয়, ভালবাসার এত সুখ, ভেবে দু’চোখে পানিতে ভরে।
কাজে মন বসে না। হটাত ছোট মেয়ে কাজলের ডাকে ভাবনার তন্দ্রা ভাঙ্গে মরিয়মের।

===মেয়ে কাজন, দুধের জন্য বায়না ধরে, দুই/আড়াই বছরের মেয়ে কাজল।
তাই মেয়েকে কলে নিয়ে বিছানায় যায়, কাজলের মুখে স্তনের বোটা ধরিয়ে, মরিয়মের ঘুমের তন্দ্রা আসে।
যুমানা পাড়ের মেয়ে মরিয়ম, সেবার আশ্বিনে বাপের সাথে মাছ ধরতে গিয়ে ছিল, সে এক মহা কান্ড,
মাছের ঝাঁকায়ে মাছ ওঠাতে শিং মাছের কাটা ফুটলো মরিয়মের ডান হাতের বুড়া আঙ্গুলে, সে কি কান্না?
বালুতে শাড়ীর আঁচল একাকার। এমন সময় দেব দুতের মত হাজির হয় মোসলেম;
মরিয়মের বাবা: বাবা মোসলেম! মরিয়মের কি হয়েছে? দেখতো? শিং মাছ আগলে দিয়েছে।
আমি কনু, তোর আসা লাগবে না, কে শুনে কার কথা, এখন বুজ, কারে কয় শীং মাছের বিশ।
আমার মাছ ধরার বারটা বাজাইলরে বাবা!
মোসলেম: চিন্তা করো না চাচা, আমি চাই তা ছি………

===সারা দিন সংসারের খাঠুনির পর শরীর ভেঙ্গে আসে মরিয়মের।
মেয়ে, সোয়ামী ঘুমিয়ে পরে । কাজ শেষে সেও ঘুমাতে যায়। ক্লান্ত শরীর, চোখে রাজ্যর ঘুম।
কুপি নিভিয়ে ঘুমিয়ে পরে মরিয়ম। কি দস্যি মেয়ে না ছিল মরিয়ম? বাপের আদুরে মেয়ে, যদিও মাকে একটু ভয় পায়।
তবুও কে শুনে কার কথা। যমুনা পাড়ের মেয়ে। পাড়ার ছেলে মেয়েরা সবাই জানতো ও দস্যি মেয়ে ওর বিয়েই নাই কপালে।
এত বড় ঢেংগি মেয়ে গাছে চড়ে বেড়ায়। এক দিন দুপুরে কয়েক সই মিলে আম খাওয়ার ছলে, উঠলো পাড়ার মহা জনের আম গাছটায়।
জানতে পেরে মহাজনের বজ্জাত ছেলে আসলো তেরে। মরিয়মকে দেখে একটু হচুট খেয়ে, বলল হেসে হেসে, বাসলে ভাল মোরে।
আম গাছটা তোমার সখি, যত পার খাও। এমন সময় মহাজন আসল গাছের তলে, আম ফেলে সবাই, জান নিয়ে গেল ভেগে।
মেয়ে কাজল হিসু করেছে, কাঁথা ভিজে, মরিয়মের গা ভেজায় ভেঙ্গে গেল, মরিয়মের সুখ স্বপ্ন।
=====================

শৈলী.কম- মাতৃভাষা বাংলায় একটি উন্মুক্ত ও স্বাধীন মত প্রকাশের সুবিধা প্রদানকারী প্ল‍্যাটফর্ম এবং ম্যাগাজিন। এখানে ব্লগারদের প্রকাশিত লেখা, মন্তব‍্য, ছবি, অডিও, ভিডিও বা যাবতীয় কার্যকলাপের সম্পূর্ণ দায় শুধুমাত্র সংশ্লিষ্ট প্রকাশকারীর। ধন্যবাদ।


2 Responses to অনুগল্প-মরিয়মের স্বপ্ন

  1. khalid2008@gmail.com'
    শাহেন শাহ ফেব্রুয়ারী 9, 2011 at 2:50 অপরাহ্ন

    দারুন হয়েছে।।।।।।।।

You must be logged in to post a comment Login